বৃহস্পতিবার | ০৯ ফেব্রুয়ারী, ২০২৩

খাগড়াছড়িতে আঞ্চলিক সংগঠনের মধ্যে গোলাগুলি, আহত ১

প্রকাশঃ ২৩ নভেম্বর, ২০২২ ০৪:৪২:০৯ | আপডেটঃ ০৯ ফেব্রুয়ারী, ২০২৩ ০৮:৫৫:৫২  |  ৪৩৭
সিএইচটি টুডে ডট কম, খাগড়াছড়ি। খাগড়াছড়ির মাটিরাঙ্গায় দুই আঞ্চলিক সংগঠনের মধ্যে গোলাগুলির ঘটনা ঘটেছে। গতরাতে মাটিরাঙ্গার বড়নাল ইউনিয়নের তৈলাফাংপাড়ায় এ ঘটনা ঘটে। গোলাগুলির খবর পেয়ে বিজিবি ও পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে অনুপম চাকমা ওরফে প্রলয় নামে একজনকে গুলিবিদ্ধ হয়ে আহতাবস্থায় উদ্ধার করা হয়। উদ্ধারের পর তাকে চিকিৎসার জন্য চট্টগ্রাম মেডিকেলে প্রেরণ করা হয়েছে।

পুলিশ জানায়, গুলিবিদ্ধ অনুপম চাকমা ওরফে প্রলয় ইউপিডিএফ প্রসীত গ্রুপের চাঁদা আদায়কারী। আধিপত্য বিস্তার নিয়ে ইউপিডিএফ’র বিবাদমান দুইটি পক্ষের মধ্যে গোলাগুলির ঘটনা ঘটে। গুলিবিদ্ধ অনুপমের কাছ থেকে একটি বিদেশী তৈরী অস্ত্র, ৫ রাউন্ড গুলি, ইউপিডিএফ’র সাংগঠনিক নথিপত্র সহ ব্যাগ উদ্ধার করা হয়েছে।

মাটিরাঙ্গা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহাম্মদ আলী জানান, অস্ত্র ও গুলি উদ্ধারের ঘটনায় আটক অনুপমকে আসামী করে অস্ত্র আইনে মামলা হয়েছে। পুলিশ হেফাজতে তার চিকিৎসা চলছে।

এদিকে আজ বুধবার ইউপিডিএফের মুখপাত্র অংগ্য মারমা সংবাদ মাধ্যমে প্রদত্ত এক বিবৃতিতে ঘটনার তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়ে বলেন, গতকাল মঙ্গলবার সন্ধ্যা ৭টার সময় মাটিরাঙ্গা উপজেলার বড়নাল ইউনয়নের তৈলাফাং বড়পাড়া নামক স্থানে নব্যমুখোশ বাহিনীর ৫/৬ জনের একটি সন্ত্রাসী দল অতর্কিতভাবে ইউপিডিএফ সদস্য অনুপম চাকমার ওপর হামলা চালায়। এ সময় তিনি সেখানে একটি দোকানে অবস্থান করছিলেন। সন্ত্রাসীরা দোকান থেকে অনুপম চাকমাকে ধরে প্রথমে লাঠিসোটা দিয়ে অমানুষিকভাবে মারধর করে। তারা তার মাথা ও শরীরের নানা জায়গায় প্রচন্ড আঘাত করে, এতে তার মাথা ফেটে যায়।


খাগড়াছড়ি |  আরও খবর
এইমাত্র পাওয়া
আর্কাইভ
সর্বসত্ত্ব সংরক্ষিত, ২০১৭-২০১৮।    Design & developed by: Ribeng IT Solutions