বান্দরবানের নিম্মাঞ্চলে পানি কমাতে স্বাভাবিক হয়েছে সড়ক যোগাযোগ

প্রকাশঃ ৩০ জুলাই, ২০২১ ০৪:১৬:৪৮ | আপডেটঃ ০৮ অক্টোবর, ২০২১ ০৩:০৪:৩১
সিএইচটি টুডে ডট কম, বান্দরবান। বান্দরবানে গেল কয়েকদিনের বৃষ্টিতে জনজীবনে বিপর্যয় নেমে এসেছে, টানা বৃষ্টি আর জলাবদ্ধতায় কয়েকদিন প্রচুর ভোগান্তীতে কাটে সাধারণ জনগণের।

এদিকে বৃহস্পতিবার সন্ধ্যা থেকে বৃষ্টিপাত বন্ধ থাকায় জেলার নিম্মাঞ্চলের পানি কমতে শুরু করেছে। সাধারণ জনগণ পানি কমার সাথে সাথে ঘর বাড়ী পরিস্কার করার পাশাপাশি নিজ আসবাবপত্রসহ আনুষাঙ্গিক দ্রব্যাদি পরিস্কার করছে। সড়ক থেকে পানি নেমে যাওয়ায় বান্দরবানের রোয়াংছড়ি-লামা-আলীকদমের সড়ক যোগাযোগ স্বাভাবিক হয়েছে।

জেলার সাংগু ও মাতামুহুরী নদীর পানি কমতে থাকায় নিম্মাঞ্চলের পানি নেমে গেছে। বান্দরবান পৌর এলাকার আর্মীপাড়া, শেরে বাংলা নগর, ইসলামপুর, মেম্বারপাড়া, বালাঘাটা, কালাঘাটাসহ আশপাশের নিম্নাঞ্চলের বন্যার পানি নেমে যাওয়ায় জনজীবনে স্বস্তি নেমে এসেছে।

প্রবল বৃষ্টির কারণে বান্দরবানের বিভিন্নস্থানে পাহাড় ধসের ঘটনার পাশাপাশি পৌরসভার ইসলামপুর এলাকায় একটি ব্রীজের একপাশের মাটি সরে যাওয়ায় যান চলাচল বন্ধের পাশিপাশি দুর্ভোগে পড়েছে স্থানীয় বাসিন্দারা।

এদিকে প্রশাসনের পক্ষ থেকে বান্দরবানের ৭টি উপজেলায় ১৪০টি আশ্রয়কেন্দ্র খোলা হয়েছে এবং  পৌরসভায় ২০টি আশ্রয়কেন্দ্রে প্রায় ৩ হাজার ও উপজেলার ৮টি আশ্রয়কেন্দ্রে ৮শত মানুষ বৃহস্পতিবার রাত পর্যন্ত আশ্রয় নিয়েছে। প্রশাসনের পক্ষ থেকে আশ্রয়কেন্দ্রে রুটি,বিস্কুট,বিশুদ্ধ পানি ও রান্না করা খিচুরী প্রদান করা হচ্ছে।

বান্দরবান পৌরসভার মেয়র মোহাম্মদ ইসলাম বেবী জানান,বান্দরবান পৌরসভার পক্ষ থেকে দুর্গতের খাদ্য সহায়তা প্রদান করা হচ্ছে এবং যতক্ষন পর্যন্ত আশ্রয়কেন্দ্রে জনসাধারণ উপস্থিত থাকবে ততক্ষন আশ্রয়কেন্দ্রে খাদ্য সহায়তা দেয়া হবে।

বান্দরবান জেলা প্রশাসনের তথ্যমতে, বান্দরবানে ২দিন যাবৎ ১০হাজার মানুষ পানিবন্দী ছিল  আর সদর উপজেলায় ৫ হেক্টর আউশ জমি ও ৩হেক্টর আমন জমি পানিতে নিমজ্জিত ছিল।


সর্বসত্ত্ব সংরক্ষিত, ২০১৭-২০১৮।    Design & developed by: Ribeng IT Solutions