বৃহস্পতিবার | ২৫ ফেব্রুয়ারী, ২০২১

কাপ্তাইয়ে ১ যুবকের আত্মহত্যা, আত্নহত্যার কৌশল দেখাতে গিয়ে আরেকজনের গলায় ফাঁস

প্রকাশঃ ২৫ জানুয়ারী, ২০২১ ০৩:৫৬:২৯ | আপডেটঃ ২৩ ফেব্রুয়ারী, ২০২১ ০৮:২১:১৭  |  ৩১৮
সিএইচটি টুডে ডট কম, কাপ্তাই (রাঙামাটি)। পারিবারিক কলহের জেরে গলায় ফাঁস দিয়ে আত্নহত্যা করেন শোয়েব আহমেদ (২৮)। আর এঘটনার খবর শুনে কীভাবে আত্নহত্যা করে, মজার ছলে তার অনুকরণ করে বন্ধুদের দেখাতে গিয়ে গলায় ফাঁস লেগে প্রাণ হারিয়েছেন আরেক যুবক নাইমুর রহমান নয়ন (২২)। মাত্র ৯ ঘন্টার ব্যবধানে রাঙামাটির কাপ্তাইয়ে হৃদয়বিদারক এই দুটি মৃত্যুর ঘটনা ঘটেছে। দু’জনের মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য রাঙামাটি জেনারেল হাসপাতালে পাঠিয়েছে পুলিশ।

রোববার (২৪ জানুয়ারি) রাত সাড়ে নয়টার দিকে কাপ্তাই বিদ্যুৎ প্রজেক্ট এলাকায় পারিবারিক কলহের জেরে ওড়না পেঁচিয়ে ঘরের সিলিং ফ্যানের সাথে শোয়েব গলায় ফাঁস দিয়ে আত্নহত্যা করেন। কাপ্তাই পানি উন্নয়ন বোর্ডের গাড়ি চালক খয়েজ আহমদ তরুনের ছেলে শোয়েব পানি উন্নয়ন বোর্ড উচ্চ বিদ্যালয়ে অবৈতনিক শারীরিক শিক্ষক হিসেবে কর্মরত ছিলেন।

সোমবার (২৫ জানুয়ারী) সকালে শোয়েবের মৃত্যুর খবর জানাজানি হলে আত্মহত্যার কৌশল নিয়ে বন্ধুদের সঙ্গে গল্প করছিলেন নাইমুর রহমান নয়ন। এক পর্যায়ে মজার ছলে আত্নহত্যার অনুকরণ করে বন্ধুদের দেখাতে গিয়ে গলায় ফাঁস লেগে যায় নয়নের। পরে দ্রুত চন্দ্রঘোনা মিশনারি হাসপাতালে নেয়া হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। মৃত নয়ন কাপ্তাই প্রজেক্ট এলাকার ফরহাদ হোসেনের ছেলে।

কাপ্তাই থানার ওসি মো. নাছির উদ্দিন বলেন, 'রোববার রাতে পারিবারিক কলহের জেরে শোয়েব গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেন। আতœহত্যার কৌশল দেখাতে গিয়ে নাইমুর রহমান নয়ন বন্ধুদের সাথে মজা করে গলায় ফাঁস দিয়ে মৃত্যুবরণ করেন।

রাঙামাটি |  আরও খবর
এইমাত্র পাওয়া
আর্কাইভ
সর্বসত্ত্ব সংরক্ষিত, ২০১৭-২০১৮।    Design & developed by: Ribeng IT Solutions