শনিবার | ২৫ জানুয়ারী, ২০২০

কাপ্তাইয়ে তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে নিহত ১, আহত ২

প্রকাশঃ ১১ ডিসেম্বর, ২০১৯ ১১:১৪:৫৯ | আপডেটঃ ২৪ জানুয়ারী, ২০২০ ০৬:৩৩:১২  |  ৬৩৪
সিএইচটি টুডে ডট কম, কাপ্তাই (রাঙামাটি)। কাপ্তাইয়ের রাইখালী ইউনিয়নের পূর্বকোদালা এলাকায় তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে দুইপক্ষের মারামারির ঘটনায় মংবাচিং মারমা (৩৫) নিহত এবং আরও দুইজন আহত হওয়ার খবর পাওয়া গিয়েছে। আহতদের মধ্যে একজনকে আশঙ্কাজনক অবস্থায় উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে। শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত এই ঘটনায় জড়িত থাকার অভিযোগে এয়াকুব নামের সাবেক এক ইউপি সদস্যকে পুলিশ আটক করেছে বলে জানান, চন্দ্রঘোনা থানা অফিসার ইনচার্জ আশ্রাফ উদ্দিন।

রাইখালী ইউপি (ভারপ্রাপ্ত) চেয়ারম্যান মো. এনামুল হক বলেন, পাওনা টাকা আদায়কে কেন্দ্র করেই মূলত মারামারি হওয়ার ঘটনা ঘটে। স্থানীয় থোয়াইচিং মারমার ছেলে উসিমং মারমার (৩০) ও কেথোয়াই মারমা (৪০) কাছে পাওনা অর্থ চাওয়ায় কথা কাটাকাটির এক পর্যায়ে স্থানীয় সৈয়দ মিয়া (৩২) এবং মিরুর (প্রকাশ) সঙ্গে মারপিট করে। মারামারির ঘটনায় বাঁধা দিতে এসে মাথায় গুরুতর আঘাত পায় উসিমং মারমার বড় মংবাচিং মারমা (৩৫)। পরে ঘটনাস্থল হতে আশঙ্কাজনক অবস্থায় তাকে উদ্ধার করে চট্টগ্রাম মেডিকেলে হাসপাতালে (চমেক) প্রেরণ করলে বুধবার রাত ১০টার দিকে মারা যায় মংবাচিং মারমা। এই ঘটনায় স্থানীয় থোয়াইচিং মারমার ছেলে উসিমং মারমাকে (৩০) গুরুতর আশঙ্কাজনক অবস্থায় কাপ্তাই স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়। এসময় আরও আহত হয় তারই ভাই কেথোয়াই মারমা (৪০)।

চন্দ্রঘোনা থানা অফিসার ইনচার্জ মো. আশ্রাফ উদ্দিন ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, রাইখালীর দূর্গম পূর্ব কোদালায় মঙ্গলবার বিকেলে এই ঘটনা ঘটে। এই ঘটনায় গুরুতর আহত হয়ে চট্টগ্রাম মেডিকেল হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় বুধবার মধ্য রাতেই মারা যায় মংবাচিং মারমা। এদিকে এই ঘটনায় জড়িত থাকার অভিযোগে সাবেক ইউপি সদস্য মো. এয়াকুবকে আটক করা হয়েছে। এই ঘটনায় মামলা প্রক্রিয়াধীন বলেও জানান তিনি।   

রাঙামাটি |  আরও খবর
এইমাত্র পাওয়া
আর্কাইভ
সর্বসত্ত্ব সংরক্ষিত, ২০১৭-২০১৮।    Design & developed by: Ribeng IT Solutions