রবিবার | ১৭ অক্টোবর, ২০২১
রাঙামাটি জেলা পরিষদের মাসিক সভা অনুষ্ঠিত

পর্যটনের ঝুলন্ত ব্রীজ নতুনভাবে নির্মাণের সম্ভাব্যতা যাচাইয়ের নির্দেশ

প্রকাশঃ ২০ সেপ্টেম্বর, ২০২১ ০৬:৫৬:২৮ | আপডেটঃ ১৭ অক্টোবর, ২০২১ ০৩:৩১:৫১  |  ২৪২
সিএইচটি টুডে ডট কম, রাঙামাটি।  রাঙামাটি পার্বত্য জেলা পরিষদ এর মাসিক সভা রবিবার (১৯ সেপ্টেম্বর) সকালে পরিষদের সভাকক্ষে অনুষ্ঠিত হয়েছে। সভায় সভাপতিত্ব করেন রাঙামাটি পার্বত্য জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান অংসুই প্রু চৌধুরী।

পরিষদের মুখ্য নির্বাহী কর্মকর্তা মোহাঃ আশরাফুল ইসলাম এর সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত সভায় রাঙামাটি পার্বত্য জেলা পরিষদের সদস্য যথাক্রমে সদস্য প্রর্বতক চাকমা, সদস্য বিপুল ত্রিপুরা, সদস্য বাদল চন্দ্র দে, সদস্য প্রিয়নন্দ চাকমা, সদস্য ঝর্ণা খীসা, সদস্য দিপ্তীময় তালুকদার, সদস্য অংসুই ছাইন চৌধুরী, সদস্য আসমা বেগম, সদস্য সবির কুমার চাকমা, সদস্য নিউচিং মারমা, সদস্য আব্দুর রহিম, সদস্য রেমলিয়ানা পাংখোয়া, ডেপুটি সিভিল সার্জন ডাঃ নীতিশ চাকমা, জেলা ক্রীড়া কর্মকর্তা আফাজ উদ্দীন, জেলা পরিবার পরিকল্পনা বিভাগের উপপরিচালক মোঃ আনোয়ারুল আজিম, জেলা প্রাণিসম্পদ কর্মকর্তা ডাঃ বরুন কুমার দত্ত, কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের উপপরিচালক কৃঞ্চ প্রসাদ মল্লিক, জেলা মৎস্য কর্মকর্তা শ্রীবাস চন্দ্র চন্দ, জেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসার মোঃ সাজ্জাদ হোসেন, জেলা কার্যালয় বিসিক সহকারী মহাব্যবস্থাপক সান্তপন বড়––য়া, হর্টিকালচার সেন্টার বনরুপা উপপরিচালক মোঃ কাজী শফিকুল ইসলাম, জেলা সমবায় কর্মকর্তা ইউসুফ হাসান চৌধুরী, যুব উন্নয়ন অধিদপ্তরের উপপরিচালক মোঃ শহিদুল ইসলাম, উপসহকারী প্রকৌশলী অমিত কুমার চাকমা, নার্সিং ইনস্ট্রাকটর ইনচার্জ কৃঞ্চা চাকমা, বিএডিসি(সেচ) উপসহকারী প্রকৌশলী ইমাম হোসাইন,  প্রধান তুলা উন্নয়ন কর্মকর্তা পরেশ চন্দ্র চাকমা, হর্টিকালচার সেন্টার কাপ্তাই হর্টিকালচারিস্ট মোঃ জামাল হোসেন, বিএডিসি (বীজ) উপপরিচালক মোঃ লুৎফর রহমান,  ক্ষুদ্র নৃগোষ্ঠীর সাংস্কৃতিক ইনষ্টিটিউটের পরিচালক রুনেল চাকমা, পর্যটন হলিডে কমপ্লেক্স এর ব্যবস্থাপক সৃজন বিকাশ বড়–য়া, হর্টিকালচার সেন্টার বালুুখালী উপ সহকারী ্উদ্যান কর্মকর্তা পুষ্পধন চাকমা, জনস্বাস্থ্য অধিদপ্তরের সহকারী প্রকৌশলী সজল চক্রবর্তী, জেলা পিগ ফার্ম সহকারী পরিচালক ডা: কুসুম চাকমা, উপসহকারী প্রাণী সম্পদ কর্মকর্তা মোঃ আবু তাহের, জেলা সহকারী লাইব্রেরিয়ান সুনীলময় চাকমা, স্বাস্থ্য প্রকৌশলের সহকারী প্রকৌশলী সজল চক্ররর্তী,  জেলা শিল্পকলা একাডেমির কালচারাল কর্মকর্তা অনুসিনথিয়াা চাকমা, জেলা সমাজসেবা সহকারী পরিচালক বিশ^জিৎ চাকমা, জেলা শিক্ষা কর্মকর্তা মো: জাহাঙ্গীর আলম, রাঙ্গামাটি পার্বত্য জেলা পরিষদের নির্বাহী প্রকৌশলী বিরল বড়––য়া, হিসাব ও নিরীক্ষা কর্মকর্তা খোরশেদুল আলম চৌধুরী, জনসংযোগ কর্মকর্তা অরুনেন্দু ত্রিপুরা এবং প্রশাসনিক কর্মকর্তা মনতোষ চাকমা উপস্থিত ছিলেন।

ডেপুটি সিভিল সার্জন ডাঃ নীতিশ চাকমা রাঙামাটি জেলার করোনা পরিস্থিতির উপর সংক্ষিপ্ত বিবরণ সভায় উপস্থাপন করেন। তিনি বলেন, জেলার কোভিড ১৯ টিকাদানের কার্যক্রম সুষ্টুভাবে পরিচালিত হচ্ছে। পৌরসভা, ইউনিয়ন ও ওয়ার্ড পর্যায়ে গণটিকা কার্যক্রম চালু রয়েছে। গণটিকা কার্যক্রমে ৩১,৯৯৭ জনকে ১ম পর্যায়ে ১ম ডোজ টিকা এবং ২৯,৬১৬জনকে ২য় পর্যায়ে ২য় ডোজ টিকা প্রদান করা হয়েছে। সর্বমোট ৬১৬১৩জনকে গণটিকা কার্যক্রমে টিকা প্রদান করা হয়েছে। এছাড়া তিনি আগামী ২৩ সেপ্টেম্বর রাঙামাটি পার্বত্য জেলা পরিষদের অর্থায়নে নির্মিত কোভিড চিকিৎসা ইউনিট উদ্বোধনের প্রস্তুতি চলছে বলে সভাকে জানান।

সভাপতির বক্তব্যে জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান অংসুই প্রু চৌধুরী বিভাগীয় কর্মকর্তাদের বিভাগীয় কর্মকান্ড সম্পাদনে আরও মনোযোগী হওয়ার পরামর্শ দেন। তিনি কর্মকর্তাদের জেলার সার্বিক উন্নয়নের স্বার্থে পরিষদের সভায় নিয়মিত উপস্থিতি এবং হস্তান্তর চুক্তি অনুযায়ী কার্যক্রম পরিচালনার জন্য নির্দেশনা প্রদান করেন। তিনি রাঙামাটি জেলার বিভিন্ন উপজেলায় জনগণের পানীয় সংকট দূরীকরণে টিউবওয়েল নির্মাণে অনিয়ম বা অসঙ্গতিগুলি সরজমিন তদন্ত এবং স্থানীয় জনপ্রতিনিধিদের সাথে সমন্বয় করে টিউবওয়েল স্থাপন করার জন্য জনস্বাস্থ্যের কর্মকর্তাদের নির্দেশ দেন। তিনি আঞ্চলিক হাঁস প্রজনন কেন্দ্রের জন্য ইনকিউবিটর মেশিন সংগ্রহ এবং পর্যটনের ঝুলন্ত ব্রীজ নতুনভাবে নির্মাণের সম্ভাব্যতা যাচাইয়ের জন্য সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তাদের পরামর্শ প্রদান করেন।



উন্নয়ন খবর |  আরও খবর
এইমাত্র পাওয়া
আর্কাইভ
সর্বসত্ত্ব সংরক্ষিত, ২০১৭-২০১৮।    Design & developed by: Ribeng IT Solutions